আজ জনপ্রিয় গায়ক বেলাল খান এর শুভ জন্মদিন…

এ সময়ের তরুণ জনপ্রিয় গায়ক এবং জাতীয় পুরস্কার প্রাপ্ত সুরকার বেলাল খান। শ্রুতিমধুর এবং মিষ্টি গানের জন্য তিনি শ্রোতাদের হৃদয়ে মিশে গেছেন। সবসময় সঙ্গীত সাধনায় মগ্ন এই গানের মানুষের আজ শুভ জন্মদিন।
১৯৮৫ সালের আজকের এই দিনে টাঙ্গাইল জেলার সখীপুরে জন্মগ্রহণ করেন গায়ক বেলাল খান। তার জন্মদিন সম্পর্কে জানতে সঙ্গীতাঙ্গন এর সাথে বেলাল খানের কথোপকথন।

সঙ্গীতাঙ্গনঃ আস-সালামুআলাইকুম। কেমন আছেন?

বেলাল খানঃ আলহামদুলিল্লাহ্ ভালো আছি।

সঙ্গীতাঙ্গনঃ আজ আপনার জন্মদিন, তো জন্মদিনের জন্য কি কোন আয়োজন বা অনুষ্ঠান আছে?

বেলাল খানঃ সত্যি বলতে কি, আসলে আমি এই জন্মদিনের ব্যাপারে তেমন কোন উৎসাহ বা পালন করার জন্য কোন গুরুত্ব এসব নেই। কোন দিন এসব করিনি। তবে সন্ধার পর আমার কিছু বন্ধু বান্ধব আসবে জাস্ট গেট টুগেদার হবে আর কি। আগেও কখনো জন্মদিনের পোগ্রাম করিনি তো এবার ঈদে ঢাকার বাহিরে ছিলাম। আজ ঢাকায় আসলাম। তো তেমন কোন চিন্তা নেই। একটা প্লেন আছে আগেই ছিল সেটা হচ্ছে আশে পাশে এতিম ছেলেমেয়েদেরকে নিয়ে কিছু সময় কাটাবো। তাদের সাথে কিছু সময় থাকবো। এটা আগেই প্লেন ছিল। এর চেয়ে বেশি কিছু না।

সঙ্গীতাঙ্গনঃ আপনার ব্যাক্তিগত জীবনে সঙ্গীতাঙ্গনকে কিভাবে দেখেন? বা সঙ্গীত জগৎকে কিভাবে সামনে এগিয়ে নেবার পরিকল্পনা করছেন?

বেলাল খানঃ আসলে আমার প্ল্যান বলতে, আমি এখন বর্তমানে যেভাবে কাজ করছি সেভাবেই করে যাবো। এখনও তেমন কম্প্রোমাইজ মিউজিক করিনা ভাবছি করবোও না। আগামীর জন্য আরো বেশি সিরিয়াস হবো। অর্থাৎ আগামী এক বছর এবাবেই কাজ করবো। সামনে আমার বেশ কিছু মিউজিক ভিডিও আসবে। সেখানে প্রেজেন্টস থাকবো। সেখানে সারপ্রাইজ থাকবে। নতুন কিছু কাজ করবো সেখানে। আরো বেশী সিরিয়াস হয়ে কাজ করছি তার জন্য। তো সঙ্গীত জগৎকে আরো বেশি সমৃদ্ধ করতে কাজ করে যাবো এই আর কি। বছরে তিন থেকে চারটি মিউজিক করবো বেশি না।

সঙ্গীতাঙ্গনঃ আপনি অতীত ও বর্তমান সঙ্গীত জগৎকে কি ভাবে দেখেন?

বেলাল খানঃ সেটা বলতে গেলে আমি যখন প্রথম শুরু করি অর্থাৎ ২০১০-১১ তো সেই সময়ের মিউজিক আর বর্তমানের মিউজিকের বেশ পরিবর্তন এসেছে। বিশেষ করে মিউজিক ভিডিওতে বেশ পরিবর্তন হয়েছে। একটা সময় ছিল যখন নরমালী যারা গান করতেন তারা গান লিখিয়ে নিয়ে রেকর্ডিং করে কাজ শেষ। কিন্তু এখন মিউজিক ভিডিওতে তারা চেষ্টা করছেন নতুন কিছু উপস্থাপন করতে। দর্শকদের সামনে নিজেকে নতুন ভাবে প্রকাশ করতে। যারা নতুন বা পুরনো আছে তারা সবাই চেষ্টা করছে নতুন কিছু করতে। মিউজিক ইন্ডাসট্রিতে এখন নতুন কিছু আনতে সবাই যার যার অবস্থানে থেকে চেষ্টা করে যাচ্ছে। আশা করি মিউজিককে আমরা ভালো লাগার দিকে নিয়ে যেতে পারবো।

সঙ্গীতাঙ্গনঃ আমাদেরকে সময় দেবার জন্য সঙ্গীতাঙ্গনের পক্ষ থেকে অনেক অনেক ধন্যবাদ এবং সেই সাথে অভিনন্দন ও জন্মদিনের শুভেচ্ছা, শুভজন্মদিন।

বেলাল খানঃ আপনাদেরও অনেক শুভেচ্ছা অভিনন্দন ভালো থাকবেন।  – মোশারফ হোসেন মুন্না…

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: