বৃটেনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের বর্ণাঢ্য পূনর্মিলনী…

বাংলা সাহিত্য, সংস্কৃতি, সঙ্গীত, সূর্যের তাজা আলোর মতই ছড়িয়ে যাচ্ছে সারা বিশ্ব-ভুবনে। আমরা সারা পৃথিবীতে ছড়িয়ে যেতে চাই, আমাদের সুর পৌছিয়ে দিতে চাই সবার প্রাণে প্রাণে। তাই লন্ডনে বসবাসরত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের সংগঠন ঢাকা ইউনিভার্সিটি অ্যালোমনি এসোসিয়েশন ইউকের উদ্যোগে প্রথমবার অনুষ্ঠিত হয়ে গেল বর্নাঢ্য পূনর্মিলনী। গত শনিবার পূর্ব লন্ডনের মে-ফেয়ার ভেন্যুতে পাঁচ শতাধিক সাবেক ছাত্র-ছাত্রীর উপস্থিতিতে অনুষ্ঠিত এই মিলনমেলায় ১৯৫৭ সালের গ্রাজুয়েট থেকে শুরু করে বিভিন্ন দশকের শিক্ষার্থীরা অংশ নেন।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজী বিভাগের প্রাক্তন ছাত্র সাংবাদিক বুলবুল হাসান ও একই বিভাগের সাবেক ছাত্রী সৈয়দা সায়মা আহমেদের পরিচালনায় এই পূনর্মিলনী অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন অ্যালোমনি এসোসিয়েশন-এর সভাপতি রহমান জিলানী ও সাধারন সম্পাদক আনোয়ার খান। এ সময় সংগঠনের পক্ষ থেকে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক দুই শিক্ষার্থীকে বাংলাদেশের মহান মুক্তিযুদ্ধে বিশেষ অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে সম্মাননা প্রদান করা হয়।
কর্নওয়াল থেকে অনুষ্ঠানে যোগ দিতে আসা খালেদা আক্তার বলেন, ‘কলাভবন কিংবা টিএসসির আশ্চর্যসুন্দর দিনগুলো আজও আমাকে হাতছানি দেয়। আর সে কারনেই এই ছুটে আসা’। বৃটেনের মাটিতে প্রথমবারের মতো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের এই প্রাণের উৎসবে যোগ দিতে ইংল্যান্ড ছাড়াও স্কটল্যান্ড, নর্দার্ন আয়ারল্যান্ড ও ওয়েলসের বিভিন্ন শহর থেকে সাবেকরা যোগ দেন।

পূনর্মিলনী অনুষ্ঠানে স্থানীয় শিল্পীদের পাশাপাশি সঙ্গীত পরিবেশন করেন জনপ্রিয় সঙ্গীত শিল্পী ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্রী ফাহমিদা নবী। আয়োজকদের পক্ষ থেকে জানানো হয়, ২০২১ সালে যুক্তরাজ্যে আরো বড়ো পরিসরে বিশ্ববিদ্যালয়ের শতবর্ষ উদযাপন করার লক্ষ্যে ইতোমধ্যেই কাজ শুরু করেছে সংগঠনের সদস্যরা।
পৃথিবীর বুকে জাগ্রত হবে বাংলা সংস্কৃতির জয়গান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: