Press "Enter" to skip to content

কাজী তিতাস এর ‘ফিরেছি আবার’…

ফিরেছি আবার শিরোনামের সুন্দর কথার গানটি লিখেছেন সঞ্জয় মিখার্জী আর সুর করেছেন কাজী তিতাস। কাজী তিতাস এর ফিউচারিং ও পার্থ মজুমদরের সঙ্গীতায়জনে এ গানটি গেয়েছেন গান পাগল কয়েকজন শিল্পী। আর তারা হলেন, চন্দন জামান আলী, রুমেল খান, মেজবাহ রহমান ও সুমন। গানের কথায় খুঁজে পাওয়া যায় গান ফেরত গায়কীর তৃষ্ণার্ত অনুভুতি। গান থেকে অনেক দিন দুরে থাকলেও অতীতের কিছু স্মৃতিবিজড়িত কারণে আবার ভালো লাগা ভালোবাসা নিয়ে গানে ফেরার অনুভূতি প্রকাশ পেয়েছে।

এবিষয়ে গানটির শিল্পী চন্দন জামান আলী বলেন, এই ধরণের একটি গান গাইতে পেরে আমি খুব গর্বিত অনুভব করি। ভিন্ন ধর্মী এমন গান পাওয়া সত্যিই কঠিন ব্যাপার। কয়েকজন শিল্পী একসাথে গান করা ভিন্ন ধর্মীয় এমন ভিডিও সংযোজন করা গান খুব কমই হয়। আমার প্রিয় ভাই কাজী তিতাস অনেক পরিশ্রম করে গানটির কাজ শেষ করেছেন। গানটির ব্যাপারে তিতাস খুব একটিভ ছিল। গানটি আসলে অনেক আবেগ প্রবণ ছিল। একটি সাদামাটা সুরে সহজ সরল ভাষায় তৈরি করা গানটি। ভালোবাসার সবটুকু রং মিশিয়ে গানটি গাওয়ার চেষ্টা করেছি। আশা করি সবার ভালো লাগবে গানটি।

কিছু গান জীবনের কথা বলে, গানের কথায় খুঁজে পাওয়া যায় অতীতের ভালো লাগা স্মৃতি। গানের সুরে হারিয়ে যেতে চায় মন, আগের সেই চেনা দিনের চেনা চেনা পথের চেনা মানুষের সাথে। এমনই কথা ব্যাক্ত করেন গানটির আরেকজন গায়ক রোমেল খান। তিনি বলেন, এই গানটা গাইতে গিয়ে ভীষণ আবেগে আপ্লুত হয়ে পড়েছিলাম। সঙ্গীতের আলো ঝলমল সেই দিনগুলো সব চোখের সামনে ভেসে উঠছিলো। দিন নেই, রাত নেই, শুধুই গান আর বাজনা, এখানে ওখানে, হোটেলে, রেকর্ডিং ষ্টুডিওতে সারাদিন সারারাত, শুধুই গান বাজনা চলতো। যদিও এই বিদেশেও গান বাজনা নিয়ে ব্যস্ত। তবুও সেই দিন গুলো – ছিল স্বপ্ন দেখার, আগামী দিনের পৃথিবীর ছবি আঁকার, আর ভালোবাসার, আমার গাওয়া এই গানগুলো যেমন আমাকে নষ্টালজিক করে তোলে, ঠিক তেমনি ভাবে এই নতুন গানটিও ‘ফিরেছি আবার” মনে করিয়ে দেয় আমার ফেলে আসা দিনগুলো। জীবনটাই যে এমন। কিছু কাজের মাঝে খুঁজে পাওয়া যায় হারানো সে দিনের স্মৃতি। ভালো লাগা থেকেই গানের সৃষ্টি। ভালো কথা আর ভালো সুরের সন্ধান পাওয়া গেলেই গানটি মনের মতো হয়।

গানটি বিষয়ে কাজী তিতাস বলেন, আমার কাছে অসম্ভব সুন্দর লেগেছে গানটি। তাই গানটির কাজ করলাম। আশা করি গানটি সবার ভালো লাগবে। কাজী তিতাস যিনি বিদেশে থেকেও ভুলে যাননি দেশ, দেশের মানুষ, আর দেশীয় সুরে গাওয়া গান।
স্বদেশ বা মাতৃভূমি মানুষের জীবনের মূল বা শিকড়। এটা কেউ কখনো ভুলতে পারেনা। যেমন ভুলতে পারেনি স্রোতা নন্দীত গায়ক ও সুরকার ট্যালেন্ট ক্রিয়েটিভিটি এর পরিচালক কাজী তিতাস। প্রবাসের জীবন কাটছে ঠিকই তবে তার ফেলে আসা দিনের কথা, অতীত হয়ে যাওয়া স্মৃতিগুলো সব সময় মনে করিয়ে দেয় নিজের শেখরের কথা। সেই চিন্তা চেতনা সব থেকে একের পর এক গান তৈরি করছেন কাজী তিতাস। গানটির জন্য যথেষ্ট সার্পোট দিয়েছেন প্রক্ষাত সঙ্গীতজ্ঞ ফুহাদ নাসের বাবু, আজম বাবু, ও মিলন বিশ্বাষ। গানটির ভিডিও এডিটিংএ ছিলেন রাজীব বিশ্বাষ। ক্যামেরায় মাসুম ও মনিরুজ্জামান। – মোশারফ হোসেন মুন্না

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: